শিক্ষার্থীদের বই বিছানাপত্র ফেলে নতুন ভাড়াটিয়া তুললো বাড়িওয়ালা

বেকার জীবনবেকার জীবন
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  03:12 AM, 31 July 2020
শিক্ষার্থীদের বই বিছানাপত্র ফেলে নতুন ভাড়াটিয়া তুললো বাড়িওয়ালা

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় (কুবি) সংলগ্ন সালমানপুর এলাকায় মেসে থাকা কয়েকজন শিক্ষার্থীর বই ও বিছানাপত্র ফেলে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে জসিমউদ্দিন নামে এক বাড়িওয়ালার বিরুদ্ধে। শিক্ষার্থীদের না জানিয়ে করোনার ছুটির মধ্যে এসব ফেলে দিয়ে তিনি নতুন ভাড়াটিয়াও তুলেছেন। শিক্ষার্থীরা জানান, সালমানপুর এলাকার ইঞ্জিনিয়ার বাড়ির সামনে জসিমউদ্দিনের চারতলা ভবন। নিচতলা ছাড়া ওপরের তলাগুলোতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা থাকেন। বাড়িটির তৃতীয় তলার দুই কক্ষের

একটি ফ্ল্যাটে বিশ্ববিদ্যালয়ের লোকপ্রশাসন বিভাগের নবম ব্যাচের শিক্ষার্থী তন্ময় বিশ্বাস, ব্যবস্থাপনা শিক্ষা বিভাগের ১২তম ব্যাচের নিলাশ এবং ফিন্যান্স বিভাগের ১৩তম ব্যাচের দীপ্ত চক্রবর্তী থাকতেন। করোনার কারণে তারা বাড়ি চলে যান মার্চে। তাদের না জানিয়েই জিনিসপত্র ফেলে দিয়ে মেসমালিক জসিম নতুন ভাড়াটিয়া তুলেছেন। শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, এতে এক শিক্ষার্থীর ১০ হাজার টাকা এবং একটি বাইসাইকেল হারিয়ে গেছে। অন্যরাও বাড়িতে থাকায় তাদের কী হারিয়েছে বলতে

পারছেন না। এ খবর শুনে বাড়িটির অন্য ফ্ল্যাটে থাকা শিক্ষার্থীরাও দুশ্চিন্তায় পড়েছেন। ভুক্তভোগী তন্ময় বিশ্বাস বলেন, ‘ক্যাম্পাস হঠাৎ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় আমরা বাড়িতে চলে আসি। কিন্তু বাড়িওয়ালা আমাদের কিছু না জানিয়ে মালামাল ফেলে দেন।’ বাড়িওয়ালা জসিমের ফোনে কল করা হলে সাংবাদিক পরিচয় পেয়ে তিনি তা কেটে দেন। এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. কাজী মো. কামালউদ্দিন বলেন, ‘তন্ময় ফোনে বিষয়টি জানিয়েছে। বাড়িওয়ালা কখনো ভাড়াটিয়ার অনুমতি ছাড়া তার জিনিসপত্র সরাতে পারেন না। ঈদের ছুটির পর তন্ময় তার খোয়া যাওয়া জিনিসের তালিকাসহ লিখিত অভিযোগ দিলে প্রশাসনের মাধ্যমে আইনানুগ ব্যবস্থা নেব।’

 আমাদের বিসিএস গ্রুপে যোগ দিন

আপনার মতামত লিখুন :